X
সোমবার, ১২ এপ্রিল ২০২১, ২৮ চৈত্র ১৪২৭

সেকশনস

সংকট সামলাতে এলএনজি সরবরাহ বাড়ছে

আপডেট : ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ০০:৪২

সংকট সামাল দিতে এবার তরলীকৃত প্রাকৃতিক গ্যাস (এলএনজি) আমদানি বাড়াচ্ছে সরকার। আগামী মার্চ থেকে এলএনজি সরবরাহ আরও ৩০০ মিলিয়ন ঘনফুট বাড়বে। এখন প্রতিদিন সর্বোচ্চ ৪০০ মিলিয়ন ঘনফুট এলএনজি সরবরাহ করা হচ্ছে।

জ্বালানি বিভাগ, পেট্রোবাংলা এবং রূপান্তরিত প্রাকৃতিক গ্যাস (আরপিজিসিএল) কোম্পানি সূত্র বলছে, বিদ্যুৎ উৎপাদনে প্রাথমিক জ্বালানি সরবরাহ বৃদ্ধির চাপ রয়েছে। আগামী মার্চ থেকে দেশে বিদ্যুতের চাহিদা বাড়তে শুরু করবে। এই সময়ে দেশে বিদ্যুৎ উৎপাদনে কী পরিমাণ গ্যাস প্রয়োজন হবে তার একটি চাহিদা দেওয়া হয়েছে। এখন সেই চাহিদা পূরণ করার চেষ্টা করছে আরপিজিসিএল।

গ্রীষ্মে বিদ্যুৎ সর্বোচ্চ চাহিদা হবে ১৪ হাজার ৫০০ মেগাওয়াট। এই পরিমাণ বিদ্যুৎ উৎপাদনে দৈনিক এক হাজার ৫৫০ মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস সরবরাহ করার চাহিদা দিয়েছে পিডিবি। এখন সেখানে দেওয়া হচ্ছে প্রতিদিন ৮০০ মিলিয়ন ঘনফুট। গ্রীষ্মের আগেই আরও ৭৫০ মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাসের সংস্থানের চাপ রয়েছে। আগামী মাসে ৩০০ মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস সরবরাহ বাড়লে এর পুরোটা বিদ্যুতে দিলেও সর্বোচ্চ এক হাজার ১০০ মিলিয়ন ঘনফুট সরবরাহ করা যাবে। তবে সার কারখানা বন্ধ করে বিদ্যুতে গ্যাস সরবরাহ করলে চাহিদার কাছাকাছি গ্যাস সরবরাহ করা যাবে। 

আরপিজিসিএল এর জেনারেল ম্যানেজার (এলএনজি) প্রকৌশলী রফিকুল ইসলাম জানান, মার্চ মাস থেকে এলএনজি সরবরাহ বাড়বে। আমরা আশা করছি এটি সাড়ে ৭০০ মিলিয়ন ঘনফুটের মতো হতে পারে। আমাদের যেসব দীর্ঘমেয়াদি চুক্তি আছে সেখান থেকে কিছু আর কিছু আনা হবে স্পট মার্কেট থেকে। দীর্ঘমেয়াদি চুক্তি যাদের সঙ্গে আছে তাদের মোট ৬টা কার্গো এবং স্পট মার্কেটের ২টি মোট ৮টি কার্গো দিয়ে এলএনজি আনা হবে।

গ্রীষ্মের মোট বিদ্যুৎ উৎপাদনের মধ্যে ফার্নেস অয়েলে চার হাজার ৫৭০ মেগাওয়াট, কয়লা দিয়ে ৭৫০ মেগাওয়াট, জল এবং সৌর থেকে ৫০ মেগাওয়াট, আমদানি করা হবে এক হাজার ৫০ মেগাওয়াট এবং গ্যাস থেকে সাত হাজার ৬৫০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন করা হবে। তবে কোনও কারণে বাড়তি গ্যাস না পাওয়া গেলে তরল জ্বালানির ওপর নির্ভরতা বাড়াতে হবে।

এই পরিস্থিতিতে এলএনজি আমদানি বাড়াতে বিশেষ উদ্যোগ নেওয়া হলেও তা প্রয়োজনের তুলনায় খানিকটা কম। দেশে এখন দুটি এলএনজি টার্মিনাল রয়েছে। যা দিয়ে প্রতিদিন এক হাজার মিলিয়ন ঘনফুট এলএনজি আমদানি করা যায়। এজন্য পাইপলাইনও নির্মাণ করা হয়েছে। কিন্তু বাস্তবতা হচ্ছে একটি টার্মিনাল দিয়ে যতটা গ্যাস আমদানি করা যায় তাই আমদানি করা হচ্ছে। অন্য টার্মিনালটি বসেই রয়েছে।

 

/এমআর/

সর্বশেষ

যমুনার বুকে কৃষকের হাসি!

যমুনার বুকে কৃষকের হাসি!

ধর্ষণের পর আটকে রেখে মুক্তিপণ দাবির অভিযোগ, গ্রেফতার ৪

ধর্ষণের পর আটকে রেখে মুক্তিপণ দাবির অভিযোগ, গ্রেফতার ৪

নারায়ণগঞ্জে গ্যাসের আগুনে দুইজন দগ্ধ

নারায়ণগঞ্জে গ্যাসের আগুনে দুইজন দগ্ধ

৩০ কোটি টাকার টেন্ডার নিয়ে জবি ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের হাতাহাতি

৩০ কোটি টাকার টেন্ডার নিয়ে জবি ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের হাতাহাতি

দারিদ্র্য ছাপিয়ে দিপার তাক লাগানো সাফল্য

দারিদ্র্য ছাপিয়ে দিপার তাক লাগানো সাফল্য

দারুণ জয়ে শুরু কলকাতার, সাদামাটা সাকিব

দারুণ জয়ে শুরু কলকাতার, সাদামাটা সাকিব

পাটুরিয়া ঘাটে উপেক্ষিত স্বাস্থ্য বিধি!

পাটুরিয়া ঘাটে উপেক্ষিত স্বাস্থ্য বিধি!

সিনেমার জন্য তাদের আসল নামটাই মুছে গেলো!

সিনেমার জন্য তাদের আসল নামটাই মুছে গেলো!

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সাশ্রয়ের জন্য কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎ উৎপাদন জরুরি

সাশ্রয়ের জন্য কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎ উৎপাদন জরুরি

রবির মুনাফা ৩৪ কোটি টাকা

রবির মুনাফা ৩৪ কোটি টাকা

বিডা’র অনুমোদন ছাড়াই রয়েলটি ফি বিদেশে পাঠা‌নো যাবে

বিডা’র অনুমোদন ছাড়াই রয়েলটি ফি বিদেশে পাঠা‌নো যাবে

চিনির দাম কেজিতে বাড়লো তিন টাকা

চিনির দাম কেজিতে বাড়লো তিন টাকা

আগামী ২ দিন ব্যাংক লেনদেন ১০টা-১টা  

আগামী ২ দিন ব্যাংক লেনদেন ১০টা-১টা  

Bangla Tribune is one of the most revered online newspapers in Bangladesh, due to its reputation of neutral coverage and incisive analysis.
© 2021 Bangla Tribune