সেকশনস

আদালত চত্বরে বাদীপক্ষের নারী-শিশুদের মারধর

আপডেট : ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ২২:৪০

পঞ্চগড়ে আদালত চত্বরে একটি মামলার বাদীপক্ষের তিন নারী ও শিশুকে মারপিট করা হয়েছে। ওই মামলার বিবাদী পক্ষের আনোয়ার হোসেন, তার স্ত্রী শ্রুতি বেগম এবং তার বোন রুবিনা খাতুন বাদীপক্ষের লোকজনদের ওপর এই হামলা করেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় এক নারীকে আটক করা রয়েছে। মঙ্গলবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে পঞ্চগড় চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত চত্বরে এ ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, হামলার পর আহতরা প্রায় আধাঘণ্টা মাটিতে পড়ে ছিলেন। খবর পেয়ে সাংবাদিকরা ঘটনাস্থলে গিয়ে ছবি তোলা শুরু করলে পুলিশ তৎপর হয়ে ওঠে। কোর্ট পুলিশ পঞ্চগড় সদর উপজেলার টুনিরহাট বানিয়াপাড়া এলাকার মকছেদুল ইসলামের স্ত্রী আজিমা খাতুন (২৮), তার প্রতিবন্ধী মেয়ে মারিয়া শেখ (৫) আজিমার মা সকিনা বেগম (৫০), খালা রহিলা বেগমকে (৪৫) আহতাবস্থায় উদ্ধার করে পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করে।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, গত ৪ ফেব্রুয়ারি বাড়ির গাছের ডালপালা কাটাকে কেন্দ্র করে পঞ্চগড় সদর উপজেলার টুনিরহাট বানিয়াপাড়া এলাকার মকছেদুল ইসলাম ও প্রতিবেশী আজিরত ইসলামের পরিবারের মধ্যে সংঘর্ষ হয়। এ সময় মকছেদুলের পরিবারের বেশ কয়েকজন আহত হন। ১০ ফেব্রুয়ারি মকছেদুল বাদী হয়ে আজিরতসহ ৮ জনের নামে আদালতে মামলা করেন। ওই মামলায় মঙ্গলবার আদালতে আত্মসমর্পণ করে আসামিরা জামিন আবেদন করলে আদালত আজিরত ও রয়েল নামের দুই আসামির জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন এবং বাকি আসামিদের জামিন মঞ্জুর করেন। এ ঘটনায় বিবাদী পক্ষের আনোয়ার হোসেন, তার স্ত্রী শ্রুতি বেগম এবং তার বোন রুবিনা খাতুন ক্ষুব্ধ হয়ে উঠেন এবং মারপিট শুরু করেন।

হামলায় আহত এক নারী আহত নারী ও বাদী মকছেদুর রহমানের স্ত্রী আজিমা খাতুন জানান, মামলার শুনানি থাকায় আমরা আদালতে উপস্থিত ছিলাম। আদালত প্রধান দুই আসামির জামিন নামঞ্জুর করার পর যখন আমরা ভবন থেকে বের হচ্ছিলাম তখন তাদের পক্ষের আনোয়ার, তার স্ত্রী শ্রুতি ও তার বোন রুবিনা আমাদের টেনে হিঁচড়ে আদালত চত্বরে নিয়ে সবার সামনেই মারধর করে। এমনকি আমার প্রতিবন্ধী মেয়েটিকেও ছাড়েনি তারা। আমরা চিৎকার করছিলাম, কিন্তু কেউ এগিয়ে আসেনি। পরে পুলিশ আমাদের উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে।

পঞ্চগড় আদালতের পরিদর্শক মকবুল হোসেন বলেন, ‘ঘটনার সঙ্গে সঙ্গে আমরা তাদের উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করার ব্যবস্থা করি। একইসঙ্গে রুবিনা খাতুন (৩৩) নামের এক নারীকে আটক করা হয়েছে। আমরা বিষয়টি পঞ্চগড় সদর থানা পুলিশকে জানিয়েছি। এখন তারা ব্যবস্থা নেবে।’

পঞ্চগড় সদর থানার উপ-পরিদর্শক মোস্তাফিজুর রহমান জানান, ওই ঘটনায় এক নারী আটক রয়েছে। এ বিষয়ে থানায় মামলার প্রক্রিয়া চলছে।

/আইএ/

সম্পর্কিত

এলপিজি মাদার টার্মিনাল নির্মাণে শিগগিরই সমঝোতা স্মারক সই

এলপিজি মাদার টার্মিনাল নির্মাণে শিগগিরই সমঝোতা স্মারক সই

ভুয়া নিয়োগপত্রে কোটি কোটি টাকা হাতানো: বেরোবির ৩ কর্মকর্তা বরখাস্ত

ভুয়া নিয়োগপত্রে কোটি কোটি টাকা হাতানো: বেরোবির ৩ কর্মকর্তা বরখাস্ত

‘মহাত্মা গান্ধী, বঙ্গবন্ধু ও আতাতুর্কের মধ্যে আদর্শিক মিল রয়েছে’

‘মহাত্মা গান্ধী, বঙ্গবন্ধু ও আতাতুর্কের মধ্যে আদর্শিক মিল রয়েছে’

ই-সিগারেট নিষিদ্ধ করতে প্রধানমন্ত্রীর কাছে ১৫৩ এমপির চিঠি

ই-সিগারেট নিষিদ্ধ করতে প্রধানমন্ত্রীর কাছে ১৫৩ এমপির চিঠি

মাদক মামলায় দুই ভাইয়ের ১০ বছর কারাদণ্ড

মাদক মামলায় দুই ভাইয়ের ১০ বছর কারাদণ্ড

৩ ভুয়া চিকিৎসকের কারাদণ্ড

৩ ভুয়া চিকিৎসকের কারাদণ্ড

জেলায় জেলায় আন্তর্জাতিক নারী দিবস পালিত

জেলায় জেলায় আন্তর্জাতিক নারী দিবস পালিত

৫০ বছর ধরে বঙ্গবন্ধুতে আপ্লুত জেনারেল ভেতসপ

৫০ বছর ধরে বঙ্গবন্ধুতে আপ্লুত জেনারেল ভেতসপ

বাংলাদেশ-ভারত সচিব পর্যায়ের সভা অনুষ্ঠিত

বাংলাদেশ-ভারত সচিব পর্যায়ের সভা অনুষ্ঠিত

প্রাথমিকে অনলাইন বদলির উদ্বোধন আগামী সপ্তাহে

প্রাথমিকে অনলাইন বদলির উদ্বোধন আগামী সপ্তাহে

করোনা ও করোনার উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন ১৩১ চিকিৎসক

করোনা ও করোনার উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন ১৩১ চিকিৎসক

বৈদ্যুতিক শর্টসার্কিটের আগুনে পুড়লো ২৩টি ঘর

বৈদ্যুতিক শর্টসার্কিটের আগুনে পুড়লো ২৩টি ঘর

সর্বশেষ

অন্যের নামে ফেসবুক আইডি খুলছে কারা?

অন্যের নামে ফেসবুক আইডি খুলছে কারা?

বাংলাদেশের বিপক্ষে খেলছেন না কেন উইলিয়ামসন

বাংলাদেশের বিপক্ষে খেলছেন না কেন উইলিয়ামসন

বাস থেকে প্রতিবন্ধী নারীকে ফেলে দেওয়ার ঘটনায় চালক-হেলপার গ্রেফতার

বাস থেকে প্রতিবন্ধী নারীকে ফেলে দেওয়ার ঘটনায় চালক-হেলপার গ্রেফতার

নকল মাস্ক সরবরাহ: শারমিন জাহানের বিরুদ্ধে প্রতিবেদন পেছালো

নকল মাস্ক সরবরাহ: শারমিন জাহানের বিরুদ্ধে প্রতিবেদন পেছালো

ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে গৃহবধূকে ধর্ষণের অভিযোগ

ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে গৃহবধূকে ধর্ষণের অভিযোগ

টিকার পূর্ণ ডোজ গ্রহণকারীদের সঙ্গে সাক্ষাতে মাস্কের প্রয়োজন নেই

টিকার পূর্ণ ডোজ গ্রহণকারীদের সঙ্গে সাক্ষাতে মাস্কের প্রয়োজন নেই

টিভিতে আজ

টিভিতে আজ

২০ বছর পর কমিটি পাচ্ছে চট্টগ্রাম মহানগর স্বেচ্ছাসেবকলীগ

২০ বছর পর কমিটি পাচ্ছে চট্টগ্রাম মহানগর স্বেচ্ছাসেবকলীগ

ফেসুবকে স্ট্যাটাস দিয়ে সংবাদ সম্মেলনের ডাক কাদের মির্জার

ফেসুবকে স্ট্যাটাস দিয়ে সংবাদ সম্মেলনের ডাক কাদের মির্জার

 ওসির সঙ্গে আসামিদের সেলফি!

 ওসির সঙ্গে আসামিদের সেলফি!

মিয়ানমারে আটকে পড়া বিক্ষোভকারীদের মুক্তির আহ্বান জাতিসংঘের

মিয়ানমারে আটকে পড়া বিক্ষোভকারীদের মুক্তির আহ্বান জাতিসংঘের

৭ মার্চের ভাষণের একদিনের ব্যবধানে বদলে যেতে থাকে দৃশ্যপট

অগ্নিঝরা মার্চ৭ মার্চের ভাষণের একদিনের ব্যবধানে বদলে যেতে থাকে দৃশ্যপট

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

ভুয়া নিয়োগপত্রে কোটি কোটি টাকা হাতানো: বেরোবির ৩ কর্মকর্তা বরখাস্ত

ভুয়া নিয়োগপত্রে কোটি কোটি টাকা হাতানো: বেরোবির ৩ কর্মকর্তা বরখাস্ত

মাদক মামলায় দুই ভাইয়ের ১০ বছর কারাদণ্ড

মাদক মামলায় দুই ভাইয়ের ১০ বছর কারাদণ্ড

৩ ভুয়া চিকিৎসকের কারাদণ্ড

৩ ভুয়া চিকিৎসকের কারাদণ্ড

জেলায় জেলায় আন্তর্জাতিক নারী দিবস পালিত

জেলায় জেলায় আন্তর্জাতিক নারী দিবস পালিত

বৈদ্যুতিক শর্টসার্কিটের আগুনে পুড়লো ২৩টি ঘর

বৈদ্যুতিক শর্টসার্কিটের আগুনে পুড়লো ২৩টি ঘর

সড়ক দুর্ঘটনায় কলেজছাত্রীর মৃত্যু: মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে মানববন্ধন

সড়ক দুর্ঘটনায় কলেজছাত্রীর মৃত্যু: মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে মানববন্ধন

তালাকের টাকা না দেওয়ায় স্ত্রীকে ৭ টুকরা করে জুয়েল

তালাকের টাকা না দেওয়ায় স্ত্রীকে ৭ টুকরা করে জুয়েল

পোস্টম্যানের মরদেহ পড়ে ছিল সেচ ক্যানেলে

পোস্টম্যানের মরদেহ পড়ে ছিল সেচ ক্যানেলে

জিয়াউর রহমান মুক্তিযুদ্ধের নির্দেশক-পরিচালক কিছুই ছিলেন না: কৃষিমন্ত্রী

জিয়াউর রহমান মুক্তিযুদ্ধের নির্দেশক-পরিচালক কিছুই ছিলেন না: কৃষিমন্ত্রী


[email protected]
© 2021 Bangla Tribune
Bangla Tribune is one of the most revered online newspapers in Bangladesh, due to its reputation of neutral coverage and incisive analysis.