সেকশনস

অবশেষে এলপিজির মূল্য সমন্বয়ের প্রস্তাব

আপডেট : ১৬ ডিসেম্বর ২০২০, ১২:৪৭

এলপিজি অবশেষে তরলীকৃত পেট্রোলিয়াম গ্যাসের (এলপিজি) মূল্য সমন্বয়ের প্রস্তাব জমা দিয়েছে সরকারি ও বেসরকারি কোম্পানিগুলো। সূত্র জানায়, বেসরকারি কোম্পানিগুলো এলপিজির দাম ১ হাজার ৫০ টাকা আর সরকারি কোম্পানি এলপি গ্যাস লিমিটেড সাড়ে ১২ কেজির সিলিন্ডারের দাম ৭০০ টাকা করার প্রস্তাবের কথা জানিয়ে মূল্য সমন্বয়ের কথা জানিয়েছে।
গত ২৯ নভেম্বর গণশুনানির মাধ্যমে এলপিজির দাম নির্ধারণ করে প্রতিবেদন দাখিল না করায় কমিশনের চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার রুল জারি করেন হাইকোর্ট। ১৫ ডিসেম্বর এ মামলার পরবর্তী শুনানির দিন নির্ধারণ করা হয়। আজকের শুনানিতে কমিশনকে ১১ জানুয়ারি পর্যন্ত সময় দিয়েছেন আদালত। ১১ জানুয়ারি আবার শুনানির দিন ঠিক হয়েছে।
আদালত অবমাননার রুল থেকে বাঁচতে এলপিজির দাম নির্ধারণের উদ্যোগ নেয় কমিশন। আগামী ১৪, ১৭ ও ১৮ জানুয়ারি গণশুনানির সিদ্ধান্ত নিয়েছে তারা। এর আগের কাজের জন্য একটি শিডিউলও তৈরি করে।

শিডিউল অনুযায়ী, গত ৬ ডিসেম্বর বিইআরসি এলপিজি বিপণনকারীদের কাছে মূল্য নির্ধারণের প্রস্তাব চায়। কিন্তু বেসরকারি কোনও কোম্পানি প্রস্তাব না দিয়ে ৩০ দিনের সময় চায়। অন্যদিকে একমাত্র সরকারি কোম্পানি এলিপি গ্যাস লিমিটেড এজন্য বিপিসির অনুমোদন প্রয়োজন বলে এক চিঠিতে জানায়। এ অবস্থায় কমিশন গতকাল অর্থাৎ ১৪ ডিসেম্বর পর্যন্ত দামের প্রস্তাব জমা দেওয়ার সময় দেয়।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে কমিশনের একজন সদস্য বলেন, বেসরকারি কোম্পানিগুলোর পক্ষ থেকে এলপিজি অপারেটর অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (লোয়াব) কমিশনের কাছে এলপিজির মূল্য সমন্বয়ের প্রস্তাব দিয়েছে। তাতে তারা তাদের সমস্ত ব্যয়ের ধাপে ধাপে হিসাব দিয়েছে। তাতে দেখা যায়,  সাড়ে ১২ কেজির সিলিন্ডার এখন যেখানে বাজারে ৯০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে সেখানে তারা ১০৫০ টাকার কথা জানিয়েছে। অন্যদিকে সরকারি কোম্পানি এলপি গ্যাস লিমিটেড ৬০০ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৭০০ টাকা করার প্রস্তাব দিয়েছে। তবে তারা বিস্তারিত কোনও হিসাব দেননি। আমরা তাদের কাছে আবারও বিস্তারিত হিসাব চেয়ে চিঠি দিয়েছি।

জানতে চাইলে এলপি গ্যাস লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ফজলুর রহমান বলেন, আমরা বিপিসির অনুমোদন নিয়ে এই দাম বাড়ানোর প্রস্তাব দিয়েছি। আমাদের প্রথমে ৬ ডিসেম্বর চিঠি দিয়ে মাত্র একদিনের নোটিশে ৭ ডিসেম্বর দামের প্রস্তাব চাওয়ায় তখন দিতে পারিনি। পরে তা বাড়িয়ে ১৪ ডিসেম্বর করার পর আমরা এই প্রস্তাব দিয়েছি।

প্রসঙ্গত, বিইআরসির শিডিউলের মধ্যে রয়েছে ৭ ডিসেম্বরের মধ্যে স্বার্থসংশ্লিষ্ট ও লাইসেন্সিদের দাম সম্পর্কিত দলিলাদি জমা, ১৩ ডিসেম্বর কোম্পানিগুলোর প্রস্তাব পেলে  মূল্যায়ন কমিটি গঠন এবং গণশুনানির তারিখ নির্ধারণ করা। ১৩ ও ১৪ ডিসেম্বর স্বার্থসংশ্লিষ্টদের গণশুনানির বিষয়ে নোটিশ দেওয়া। এরপর ১৫ ও ১৬ ডিসেম্বর শুনানির তারিখ জানিয়ে পত্রিকায় বিজ্ঞাপন দেওয়া। এছাড়া ১৪ ডিসেম্বর থেকে ৪ জানুয়ারি গণশুনানির বিষয়ে সবার মতামত প্রদান, ৪ জানুয়ারি লিখিত মতামত প্রাপ্তি এবং শুনানিতে অংশগ্রহণের জন্য নামের তালিকাভুক্ত করা হবে। এরপর ১৪, ১৭ ও ১৮  জানুয়ারি এলপিজির দাম নির্ধারণে গণশুনানি করবে কমিশন। শুনানির পর ২৪ জানুয়ারি লাইসেন্সি ও স্বার্থসংশ্লিষ্টদের সঙ্গে শুনানি পরবর্তীতে লিখিত মতামত প্রদান করা যাবে। প্রস্তাব জমা দেওয়ার সময় বাড়ালেও শিডিউল অনুযায়ী কাজ চলছে বলে কমিশন সূত্র জানায়।

/এমআর/এমওএফ/

সম্পর্কিত

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নে ডিসিদের নির্দেশ

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নে ডিসিদের নির্দেশ

কিউলেক্স মশা খুব বিপদজনক নয়: স্থানীয় সরকার মন্ত্রী

কিউলেক্স মশা খুব বিপদজনক নয়: স্থানীয় সরকার মন্ত্রী

‘বন্যপ্রাণী রক্ষায় আন্তরিকভাবে কাজ করছে সরকার’

‘বন্যপ্রাণী রক্ষায় আন্তরিকভাবে কাজ করছে সরকার’

ভুয়া এনআইডি তৈরি করে ব্যাংক লোন নিতো তারা

ভুয়া এনআইডি তৈরি করে ব্যাংক লোন নিতো তারা

মামুনুল-বাবুনগরীর বিরুদ্ধে মামলা: তদন্ত প্রতিবেদন ১ এপ্রিল

মামুনুল-বাবুনগরীর বিরুদ্ধে মামলা: তদন্ত প্রতিবেদন ১ এপ্রিল

অ্যান্টিবডি টেস্ট কি আদৌ হবে?

অ্যান্টিবডি টেস্ট কি আদৌ হবে?

ভোট বাড়ছে আওয়ামী লীগের

পৌর নির্বাচনের ফল বিশ্লেষণভোট বাড়ছে আওয়ামী লীগের

‘বাংলাদেশের মাটিতে পাকিস্তানি যুদ্ধাপরাধীদের বিচার হবে’

‘বাংলাদেশের মাটিতে পাকিস্তানি যুদ্ধাপরাধীদের বিচার হবে’

সর্বশেষ

সাঈদ খোকনসহ ৭ জনের বিরুদ্ধে মামলার প্রতিবেদন ২৯ এপ্রিল

সাঈদ খোকনসহ ৭ জনের বিরুদ্ধে মামলার প্রতিবেদন ২৯ এপ্রিল

রূপগঞ্জে আগুনে পোড়ানো লাশ উদ্ধার

রূপগঞ্জে আগুনে পোড়ানো লাশ উদ্ধার

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নে ডিসিদের নির্দেশ

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নে ডিসিদের নির্দেশ

স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীতে কে ক্র্যাফটের আয়োজন

স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীতে কে ক্র্যাফটের আয়োজন

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিলে ২৩ দিনের আল্টিমেটাম

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিলে ২৩ দিনের আল্টিমেটাম

কিউলেক্স মশা খুব বিপদজনক নয়: স্থানীয় সরকার মন্ত্রী

কিউলেক্স মশা খুব বিপদজনক নয়: স্থানীয় সরকার মন্ত্রী

ওয়েবের জন্য চুক্তিবদ্ধ মৌ

ওয়েবের জন্য চুক্তিবদ্ধ মৌ

৭৩৯৮ ভরি সোনা আত্মসাৎ: সমবায় ব্যাংকের চেয়ারম্যানের জামিন

৭৩৯৮ ভরি সোনা আত্মসাৎ: সমবায় ব্যাংকের চেয়ারম্যানের জামিন

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সিটিও ফোরামের সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করতে বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্দেশ

সিটিও ফোরামের সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করতে বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্দেশ

ঘাটতি নেই, তবু চালের দাম বাড়ছেই

ঘাটতি নেই, তবু চালের দাম বাড়ছেই

২০ বছরে ৩০ হাজার মেগাওয়াট সৌরবিদ্যুৎ উৎপাদনের পরিকল্পনা

২০ বছরে ৩০ হাজার মেগাওয়াট সৌরবিদ্যুৎ উৎপাদনের পরিকল্পনা

সংকট সামলাতে এলএনজি সরবরাহ বাড়ছে

সংকট সামলাতে এলএনজি সরবরাহ বাড়ছে


[email protected]
© 2021 Bangla Tribune
Bangla Tribune is one of the most revered online newspapers in Bangladesh, due to its reputation of neutral coverage and incisive analysis.